তুমি তো জানই আমার রুম কে আমাদের বাসার সবাই ভয়ংকর বিপদসংকুল এক গুহা বলেই জানে । সুতারং কেউ সচারচর ঢোকে না ।আমার ল্যাপটপ,ডেস্কটপ ও মোবাইল ফোনটিকে সবাই ভাবে অভিশাপগ্রস্ত কোন অস্পৃশ্য বস্তু, সুতরাং এগুলো কারো ধরার প্রশ্নই আসে না। জদিও তুমি আমার মোবাইল তন্য তন্য করে খুজে দেখেছ অন্য প্রেমিকার প্রমাণ বের করতে । ল্যাপটপের প্রতিটা ড্রাইভে ফোল্ডারগুলোও তোমার খুলে দেয়া, আর সুযোগ পেলেই তুমি পরীক্ষার কর আমি ল্যাপটপে পর্ণ দেখি কিনা । আচ্ছা পর্ণ দেখলে কি হয় ?? আমার অনেক বন্ধুই তো পর্ণ দেখে, কই তাদের তো কোন সমস্যা হতে দেখি নি!! যত নিষেধ সব আমার জন্য তাই না ?? তবে তুমি বোকা। আমার বাসায় একটা ডেক্সটপও আছে । আমি যদি ডেক্সটপে পর্ণ দেখি তবে তুমি কি আমাকে ধরতে পারবে ??? জদিও তুমি নিষেধ করার পর থেকে আমি পর্ণ দেখা ছেড়ে দিয়েছি । এখন সময় পেলে আমি মুভি দেখি। কিন্তু কোন প্রেমের ছবি আমি দেখি না । কোন রোমান্টিক দৃশ্য দেখলেই তোমার কথা আমার মনে পড়ে যায় । তোমার চেয়ে সুন্দরি কোন নায়িকার মুভি আমি দেখি না । কেন দেখি না জানো ??  মনে ভয় লাগে যদি আমি তার প্রেম পড়ে যাই , (জদিও তোমার চেয়ে সুন্দরি কেউ এখনও আমার চোখে পড়ে নি)। তুমিই তো বল “পুরুষ মানুষ দিয়ে কোন বিশ্বাস নেই” । বার বার শুনতে শুনতে এখন নিজের উপরই নিজের সন্দেহ জাগে । পুরুষ মানুসে বিশ্বাস কর আর না কর তুমি আমাকে যে বিশ্বাস কর তার প্রমাণ কিন্তু আমি পেয়েছি । একবার না অনেকবার । তুমি রেগে যাও কোন মেয়ের ছবিতে আমি কমেন্ট করলে , তুমি রেগে যাও নায়িকাদের পেজে লাইক দিলে । জদিও এই কথাগুলো আমাকে তুমি বল নি, কিন্তু আমি বুঝি । এখন তোমার অনেক কথাই না বললেও আমি বুঝি । যেমন প্রতিদিন সকালে আমি যখন ছাত্র ছাত্রীদের পড়ান নিয়ে ব্যাস্ত থাকি তখন তোমার আমার সাথে কথা বলতে খুব ইচ্ছা করে, ঠিক কিনা?? স্বীকার না করলেও আমি জানি এটা সত্যি । আবার দুপুরে তুমি যখন কলেজ থেকে ফেরো , স্নান খাওয়ার পর তোমার আমার সাথে কথা বলতে ইচ্ছা করে । কিন্তু তখন আমি ভাত ঘুমে ব্যাস্ত থাকি। কিন্তু তুমি রাগ কর না, কারণ তুমি জানো আমি রাতে ঘুমাতে পারি না, এই জন্য তোমার কষ্ট হলেও আমাকে ছাড় দাও । তুমি জানো আমার রাতে ফোনে কথা বললে একটুও ঘুম হয় না। সারারাত জেগে থাকতে হয় । আবার ফেসবুকেও আমার ভীষণ নেশা, এজন্য তুমি মডেম কিনলে আবার একটা  ফেসবুকও খুললে শুধু আমার সাথে যোগাযোগ করার জন্য । কিন্তু তোমার পরিচিতদের জন্য ওই একাউন্ট টা টিকল না । কারণ সেখানে তুমি ইচ্ছা মত আমার বিরুদ্ধে রাগ বা অনুরাগ কোনটাই প্রকাশ করতে পারছিলেনা । ফলে নতুন আরেকটা  একাউন্ট খুললে । আমি বাংলিশ পড়তে পারি না। এইজন্য তুমি মেডিকেলে ভর্তি হওয়ার পর কম্পিউটার প্রশিক্ষণ নিলে শুধু মাত্র বাংলায় চ্যাট করার জন্য । একটা সত্যি কথা আজ বলে ফেলি আমি কিন্তু বাংলিশ পড়তে পারি, কিন্তু বিরক্ত লাগে তাই তোমাকে বলেছিলাম বাংলিশ পড়তে পারি না। রেগে গেলে নাকি??? প্লিজ রেগে জেও না। জদিও জানি তোমার রাগের স্থায়িত্ব সর্বচ্চ ৪/৫ ঘন্টা । এরপরই শুরু কর কান্নাকাটি । তুমি কাদলে আমি কি হাসি মুখে থাকতে পারি বল ??? আর এখন যথেষ্ট বড়ও হয়েছ । এখন এরকম কান্নাকাটি  কিন্তু একদমই মানায় না। তোমাকে বোকা বা গাধা বললে তুমি রেগে যাও । আর রেগে গিয়ে আরও বোকামি শুরু কর । আমি কিন্তু তখন খুব মজা পাই। তাই সুযোগ পেলেই তোমাকে আমি বোকা বলি । আমি পাকা আম খাইনা, আর সেজন্য তুমি যে এবার একটাও পাকা আম খাওনি তা কিন্তু আমি জেনে গেছি । আমি কিছু খাইনা বা করিনা বলে তুমিও খাবে না বা করবে না এটা কি কোন কথা হল??

তোমার সবচেয়ে বড় অভিযোগ আমি নাকি তোমাকে অবহেলা করি । ইচ্ছা করে ফোন বন্ধ রাখি । আর তোমাকে নাকি একটুও ভালবাসি না। এটা কোন কথা হল । যে মেয়ে আমার জন্য এত কিছু করে । যে আধাঘন্টা পর পর ভালবাসি ভালবাসি লিখে ম্যাসেজ পাঠায় তাকে কি ভালো না বেসে পারা যায় বল ??? যায় না। তোমাকে অনেক কষ্ট দেই । অনেক খারাপ ব্যাবহার করি। কোন কারণে মেজাজ খারাপ থাকলে তোমার উপর রাগ ঝাড়ি , আবার মাঝে মাঝে অশ্লীল গালাগালিও করি । কিন্তু বিশ্বাস কর আমি তোমাকে অনেক ভালবাসি । তুমি আমাকে যতটা ভালোবাশ ওতটা না বাসলেও আমি অনেক অনেক অনেক ভালোবাসি তোমাকে ।

(এটা পুরা একটা “ফাও প্যাচাল”, আশাকরি কেউ বিরক্ত হননি )

২২৯জন ২২৯জন
0 Shares

২১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য