কারো দেখা মিলুক বা না-মিলুক
কেউ উঁকি দিক বা না-দিক
সূর্যদুহিতা হয়ে,
কী এমন আসে-যায়!!

দু’একটি বুনো-ফুল সুরভিত প্রেম মেলে পথ আগলে দাঁড়াবে না
কথোপকথনের ছলে, দুদ্দার করে, আচমকা প্রাণদ-উচ্ছলতায়
সব কিছু ফেলে-টেলে, নীরবতার পবিত্র সুগন্ধি তেল পুড়িয়ে
হেসে ফেলবে-না, তা ভাবি না,

উষ্ণতার বরফ-খণ্ডখানি ছুঁড়ে দেবে কাছ-দূরত্ব থেকে,
প্রলম্বিত প্রণয়ের ক্ষীণ দূরতম ফোঁটায় ফোঁটায় ঝরা ধ্বনীবৃষ্টিতে
অবিরত অনবরত, এমন-ই ভাবি
এ রহস্য-দ্বীপের.অভয়ারণ্যে;

তাকাতাকি করি, হাসাহাসিও, ভেদ-অভেদের রেখা ভুলে
নিজেকে নিজে,
ঠিক-ঠাক মত, মন যেমন চায়, ঐ মন-ও।
শেষের শেষ পথটি দেখে ফেলেছি অনতিদূরেই,
ইচ্ছে অনিচ্ছাতেই
বা সুনিশ্চিত কোন এক মানানসই মোক্ষম চক্করে নজরবন্দী হই।

সুতীক্ষ্ণ কাঠির খোঁচায়, নিপুণ ঠোঁটে চেটেপুটে ঝিনুক খুঁটে খেতে দেখেছি
আলগা পোশাকে দু’পাটি দাঁত ফাঁক করে হাসতে হাসতে, সংলগ্নও হয়েছে,
নিঃসীম প্রান্তরে জল-লাগা পাতাদের ফাঁক গলে আসা মোহন আলোয়-ও
বিশ্বস্ত থেকেছি অসংখ্য পাশবদলেও,
লাজুক হরিণীর হেঁটে যাওয়া দেখতে দেখতে প্রেত-মদিরায়
ঢোক গিলে গিলে ভোরের আলো মেখেছি।

লুটপাট হই-নি, হবো-ও না,
লুটে নেব শুধুই নিজেকে-ই, নিজে;

*****************************************************************************

প্রহেলিকাকে

৩৫১জন ৩৫১জন
0 Shares

২৬টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ