রাত বারটার দিকে শুনতে পেলাম কে যেন কয়েকটা ইট দিয়ে সারা ছাদ চষে ফেলছে । ভাল ভাবে শুনলাম একই ধরনের শব্দ । ইট ছাদের সাথে লাগিয়ে টানলে যেমন শব্দ হয় তেমন ।

বাবার কাছে শুনেছিলাম আমরা এ বাড়িতে আসার আগে অনেকদিন এই বাড়িতে কেউ থাকত না ।
পুরাতন বাড়ি এবং নির্জন থাকার কারণে এখানে এলাকার বখাটে ছেলেরা এই বাড়ির ছাদ টাকে তাদের নেশা করার আস্তানা বানিয়েছিল । আমি মনে করলাম ওরাই হয়ত এইসব করছে । । যাতে আমরা ভয় পেয়ে বাড়িটা ছেড়ে দিই ।

মাথায় রাগ চড়ে গেল
মাঝরাতে ঘুম ভাঙ্গিয়ে বিরক্ত করা দেখাচ্ছি তোদের

দ্রুত রান্নাঘর থেকে মুরগী জবাই করা বড় চাকুটা নিয়ে ছাদের দিকে দৌড় দিলাম । মা বাবা বারবার নিষেধ করছিল ।

দ্রুত সিড়ি দিয়ে ওঠার সময় পা পিছলে পড়ে গেলাম
হাতের চাকুটা অনেক দূরে গিয়ে পড়ল । পায়ে বেশ চোট লেগেছে কোনমতে হামাগুড়ি দিয়ে চাকুটা আবার তুলে নিলাম । সারা ছাদে নিকষ কালো অন্ধকার । চারিদিকে শূন্যতা কাওকে দেখলাম না । বাড়ির সামনের রাস্তা টা লাইট পোষ্টের আলোয় দেখা যাচ্ছে । সেখানেও কেউ নেই । শুধু দূর থেকে একটা কুকুরের ডাক ভেসে এল । ছাদ থেকে নেমে এলাম ।

রুমে এসে শুয়ে শুয়ে ভাবলাম যদি ওটা কোন মানুষের কাজ হয় তবে নিশ্চয়ই ছাদে ইট টানার কারণে দাগ দেখা যাবে । এর জন্য কাল সকাল পর্যন্ত অপেক্ষা করতেই হবে ।

রাত টা কোনমতে কাটল সকাল হতেই ছাদে ছুটে গেলাম ।

চলবে…………………………….

২৮৬জন ২৮৬জন
0 Shares

৫টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ