আসুন কুরআন তেলাওয়াতের অভ্যাস করি

কুরআন তেলাওয়াত আপনাকে আলোকিত করবে। প্রতিদিন কিছু পরিমাণ তেলাওয়াত আপনাকে পরিচ্ছন্ন ও উদার মানসিকতা সৃষ্টিতে সহায়ক হবে তাকে কোন সন্দেহ নাই। শুধু সাওয়াবের উদ্দেশ্যেই কুরআন তেলাওয়াত নয়। যেহেতু যেকোন অবস্থায় যে কোন সুরতে তেলাওয়াত করা হোক না কেন সাওয়াব হতেই থাকবে সেহেতু ব্যক্তিগত জীবনে প্রার্থীব উন্নতি সাধন, আত্নার শুদ্ধিকরণ, ধারাবাহিক জ্ঞান চর্চার উৎস হিসাবে পবিত্র কুরআন তেলাওয়াতের কোন বিকল্প নাই।

প্রিয় ভাইবোনগণ, এই ব্লগে সকলে মানবিক বিষয়ে অনেক ইতিবাচক-সেটা লক্ষ করেছি। তাই এখানকার সকলকে ভাল লাগে। কারো সাথে ব্যক্তিগত স্বার্থ-সম্পর্ক না থাকলেও সকলকেই কাছের ও আত্নার বলেই মনে হয়। এভাবেই মনে হয় মতের মিল মানুষকে দূর থেকে কাছে নিয়ে আসে। আত্নার সাথে আত্নার বন্ধন তৈরী করে দেয়। কতো সুন্দর করে এই ব্লগে আমরা একে অপরের পাশাপাশি আছি। এভাবে মহান আল্লাহর জান্নাতেও আমরা এক অপরের পাশাপাশি থাকবো ইনশাআল্লাহ। আদম সন্তান ও দয়াল নবী মুহাম্মাদুর রাসুলুল্লাহর উম্মত হিসাবে আমরা একে অপরের ভাইবোন। তাই আমাদের মধ্যে মতের অমিল থাকলেও মূল যেন ঠিক থাকে সেদিকে লক্ষ্ রাখতে হবে। আমাদের কথা-কাজ, মন্তব্য যেন কোরআনোর সাথে সাংঘর্ষীক না হয়ে বরং সেগুলোর উৎসমূল যেন কোরআন হয় সেদিকটাও বিবেচনায় রাখতে হবে।

তাই, ভালবাসার দাবী হতে, ভাই বোনের সম্পর্কের পবিত্রতা হতে সকলের প্রতি আহ্বান আসুন! প্রতিদিন পবিত্র কুরআন হতে কিছু পরিমাণ তেলাওয়াতে অভ্যস্থ হই। আজ থেকে এখন থেকেই সেই শুভ সূচনা হোক। অভ্যান না থাকায় প্রথম প্রথম জড়তা আসলেও কয়েক দিনের মধ্যেই সেটা কেটে যাবে ইনশাআল্লাহ।যারা অন্য ধর্মাবলম্বী তারাও কুরআন পড়ুন, কুরআনের ম্যাসেজ বুঝার চেষ্টা করুন। আপনি দুনীয়া ও পরকালের মুক্তির জন্য আপনার করণীয় নির্দেশনা পেয়ে যাবেন। ভয় নেই! কুরআন পড়লেই আপনি মুসলমান হয়ে যাবেন না বরং আপনার আত্না সত্যানুসন্ধানে উৎসুক হবে। সত্যের পথে থাকতে সহায়ক হবে। সকলকে ধন্যবাদ, শুভ কামনা সবার জন্য।

 

৯৯জন ১৭জন
0 Shares

৮টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য