আমরা মুসলামান দাবী করি কিন্তু আল্লাহর উপর বিচারের ভরসা করতে পারিনা🤔🤔🤔
আমরা হিন্দু কিন্তু ভগবানের উপর আস্হা রাখতে পারছিনা 🤔🤔🤔
আমরা বিশ্বাস করি যিশু, বৌদ্ধ, বা অন্যান্য ধর্মের দেবদেবীর কিন্তু তাদের হাতে ক্ষমতাটা অর্পণ করার সাহস রাখতে পারিনা 🤔🤔🤔

আমরা কোরআন পড়ি
আমরা গীতা পাঠ করি
আমরা ত্রিপিটক পাঠ করি
আমরা বাইবেল সহ সমস্ত ধর্মের ধর্মীয় পাঠ্যপুস্তক পাঠ করি, কিন্তু গন্ত্রের ভিতরের উপদেশগুলা মানতে রাজি নই আফসোস।

আজ হোক কাল হোক,
এই সমাজটা উগ্ররা শাসন করবে।
কোথাও খ্রিস্টান উগ্র নেতা শাসন করবে।
কোথাও মুসলিম উগ্র নেতা শাসন করবে।
কোথাও হিন্দু উগ্র নেতা শাসন করবে।
এভাবে বৌদ্ধ বা অন্যান্য ধর্ম…

সবার যুক্তি আর উক্তিই শক্তিশালী, সবাই যিশু, আল্লাহ আর ভগমানকে আর তাঁর আদর্শকে বাঁচাতে অস্ত্র হাতে নিতে চায়। এটা তাদের ইমানী দায়িত্ব। কেউ ই বিচারটা যিশু, ভগবান আর আল্লাহ এর উপর ছেড়ে দেয়ার ভরসা রাখে না। বিচারটা সৃষ্টিকর্তাকে করতে না দিয়ে  নিজেরায় করতে চায়।

এই ঘটনায় যারা উল্লাস করছে তারায় আবার ভারতে গো মাংস নিয়ে মানুষ হত্যায় প্রতিবাদ করেছিল। আবার ভারতে গোমাংস নিয়ে মানুষ হত্যায় চুপ ছিল, তারা আবার এখন খুব করে প্রতিবাদ করছে।

মানবিক বিশ্বাসগুলো সেখানে ঠুনকো হয়ে গিয়ে ধর্মকে অতীব আঁকড়ে ধরবে, আর চাতুর রাজনীতিবিদ যাদের নিজের কোন আদর্শ নাই। তারা ধর্মের আদর্শকে আঁকড়ে ধরে, ধর্মের কথা বলে শাসন করবে।
যেভাবে জান্নাতের লোভ দেখিয়ে মাসের পর মাস একজন হুজুর ধর্ষন করবে, সেভাবে স্বর্গ নরক দেখিয়ে হিন্দু পুরোহিত তার ভক্তকে ধর্ষন করবে।

এই সমাজকে আর বাঁচানো যাবে না, এই সমাজটা একদিন  উগ্রদের দখলে যাবে। তখন আফসোস ছাড়া আর কিছুই করার থাকবেনা ।

১৩১জন ৩১জন
0 Shares

৫টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য