আজ হাগ ডে (Hug Day)

ইঞ্জা ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২০, বুধবার, ০৩:১৬:৫৭অপরাহ্ন সমসাময়িক ২৭ মন্তব্য

আজ নাকি হাগ ডে।
কি মুসকিল, আমি আবার বেশি হাগাহাগি পছন্দ করিনা, পেঠটা আবার গুড়গুড় করে, কেমনে কিরে ভাই?😜

 

থাক থাক আর দরকার নেই, আজ সত্যিই হাগ ডে, এই ডে হাগাহাগির ডে নয়, কোলাকুলি, জড়িয়ে ধরার ডে, মানে দিন।
এই দিন কোন ব্যাটায় যে বানিয়েছিলো তা আমি নিশ্চিত নই, এরপরেও আজ হাগ ডে, আসুন আনন্দবাজার পত্রিকা কি বলে শুনি।

“প্রিয় মানুষকে ছোট্ট হাগ, স্ট্রেস কমিয়ে ভাল রাখবে আপনার হার্ট
শুক্রবার প্রেমের সপ্তাহের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিন। এ দিন হল হাগ ডে। প্রতি বছর ১২ ফেব্রুয়ারি মহাসমারহে পালন করা হয় এই হাগ ডে।ভ্যালেন্টাইন ডে বা প্রেমের সপ্তাহের ষষ্ঠ দিন পালন করা হয় এই হাগ ডে। আপনার আলতো ছোঁয়াই বুঝিয়ে দেবে প্রেমের প্রতি আপনি কতটা বিশ্বস্ত।
দিন দু’য়েক পরই আস্তে চলেছে সে‌ই নির্ধারিত দিন। ভ্যালেন্টাইনস ডে। ভালবাসা এবং অনুরাগ উদ্‌যাপন করা হয় সেই দিনে। কিন্তু সেই বিশেষ দিন আসার আগেই আমরা পুরো সপ্তাহ জুড়ে পালন করছি প্রেমের সপ্তাহ। শুক্রবার প্রেমের সপ্তাহের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিন। এ দিন হল হাগ ডে। প্রতি বছর ১২ ফেব্রুয়ারি মহাসমারহে পালন করা হয় এই হাগ ডে। ভ্যালেন্টাইন ডে বা প্রেমের সপ্তাহের ষষ্ঠ দিন পালন করা হয় এই হাগ ডে।

হাগ ডে বা এ দিন প্রেমিক-প্রেমিকাকে জড়ানোর দিন। আপনার আলতো ছোঁয়াই বুঝিয়ে দেবে প্রেমের প্রতি আপনি কতটা বিশ্বস্ত। প্রিয়জনকে আপনার জড়ানোর কায়দাই বুঝিয়ে দেবে আপনি তাঁকে কতটা ভালবাসেন এবং তাঁকে আপনি সমস্ত বিপদের থেকে কতটা আলগে আলগে রাখেন। শুধু প্রেম নিবেদন করার জন্যই নয় জানেন কী এই জড়ানোর পদ্ধতির একটি বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যাও আছে।

আসুন জেনে নিই কী সেই বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা—

প্রিয়জনকে আলতো করে ছুঁতে ইচ্ছাই আপনাকে আরাম দেবে, রাখবে সুখে।

• আমরা যখন কখনও কারোকে জড়িয়ে ধরি তখন অক্সিটসিন হরমোন নিঃসারণ হয়। এই হরমোন আমাদেরকে মানসিক ভাবে সুখি অনুভব করতে সাহায্য করে। এই হরমোন সামাজিক বন্ধন বাড়াতেও সাহায্য করে। কেন না নিউরো-পেপটাইড অক্সিটক্সিন হরমোন আমাদের মধ্যে সততা, অনুরাগ বাড়িয়ে তোলে। প্রেমের সম্পর্ককে মজবুত করতে যা একান্তই প্রয়োজন।

• হাগ করা বা জড়ানো আপনার মনই নয় শরীরকেও ভাল রাখতে সাহায্য করে। যখন কেউ আপনাকে জড়ায় তখন ত্বকের মধ্যে থাকা পাসিনিয়ান কর্পাসেলস নামে প্রেসার রিসেপটর মস্তিষ্কে সংকেত পাঠিয়ে রক্তচাপ কমিয়ে দেয়। যা হার্টের ভাল থাকার পক্ষে খুবই জরুরি।

• হার্ট ভাল রাখতে জড়ানোর থেকে ভাল ওষুধ আর কিছু হতে পারে না। প্রিয়জনের ছোট্ট ছোঁয়া প্রতি মিনিটে হার্টের গতিবেগ বাড়িয়ে তোলে অন্তত ১০ বিট।

• প্রিয়জনের জড়ানো আপনাকে মানসিক ভাবে ভাল রাখে। আপনার আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে তুলে অকারণে ভয় পাওয়া কমিয়ে দেয়। প্রিয় মানুষদের জীবনে আপনার যে গুরুত্বপূর্ণ অস্তিত্ব আছে তা বোঝায়।

• মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওহিও বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণায় প্রকাশ, বয়সের সঙ্গে একাকীত্ব বাড়তে থাকে, যা স্ট্রেস বাড়িয়ে তোলে। আপনার একটা ছোট্ট হাগই আপনার প্রিয় মানুষটার একাকীত্ব কমিয়ে দিয়ে আপনাদের সম্পর্ককে আরও দৃঢ় করে তুলবে।

• যখন আমরা কারোকে জড়িয়ে ধরি তখন স্ট্রেস হরমোন কর্টিসোল নিঃসারিত হয়। এই কর্টিসোল হরমোন আমাদের জীবনে স্ট্রেস এবং মানসিক অস্থিরতা বাড়িয়ে তোলে। তাই যত বেশি আমরা জড়িয়ে ধরি তত কমে যায় কর্টিসোলের পরিমান। মানসিক ভাবে শান্ত থাকতে সাহায্য করে ছোট্ট হাগ।

তাই আসুন জীবনের সমস্ত বিরস ভাব দূরে সরিয়ে রেখে মহাসমারহে উদ্‌যাপন করুন হাগ ডে”। – সূত্রঃ আনন্দবাজার পত্রিকা।

আমি বলি কি, শুধু প্রেমিক প্রেমিকা কেন, হাগ ডে কি বাবা মা, স্ত্রী, সন্তান, বন্ধু বান্ধবের জন্য নয় কেন?
অবশ্যই সবার জন্য হওয়া উচিত এই বিশেষ দিবস, আপনি আপনার পিতা মাতাকে জড়িয়ে ধরে আপনার ভালোবাসা প্রকাশ করে বলুন, বাবা / মা, আমি তোমাদের ভালোবাসি, তোমরা দোয়া করো যেন আমি মানুষের মতো মানুষ হতে পারি, যেন তোমাদের শ্রেষ্ট সম্পদ হতে পারি।
স্ত্রীকে জড়িয়ে ধরে বলুন, আমি তোমাকে ভালোবাসি, তোমার সকল চিন্তা আমাকে দিয়ে তুমি নিশ্চিন্তে থাকো।
সন্তানদের জড়িয়ে ধরে বলুন, আমি তোমাদের ভালোবাসি, আমার সামর্থ্য অনুযায়ী আমি সকল চেষ্টা করবো যেন তোমরা মানুষের মতো মানুষ হও।
বন্ধুদের জড়িয়ে ধরে চিৎকার করে বলুন, ভালোবাসি তোদের।

আজকের হাগ ডেতে আর কি চাই?

প্রিয় সোনেলা, আমি তোমায় ভালোবাসি।

সমাপ্ত।

৪৪০জন ৬৩জন
21 Shares

২৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য