জলতরঙ্গ (৭ ও শেষ পর্ব)

 লিখেছেন on আগস্ট ১৩, ২০১৭ at ৮:০৫ অপরাহ্ন  গল্প  ৩ Responses &#১৮৭;
আগস্ট ১৩২০১৭
 
জলতরঙ্গ (৭ ও শেষ পর্ব)

      এক সপ্তাহ পর ——————– ল্যান্ডফোনের রিং বাজতেই আবীর চায়ের কাপ রেখে হ্যান্ডসেট তুলে সালাম দিলো। আবীর কেমন আছো তুমি, অপর প্রান্ত থেকে এমডি সাহেবের গলা ভেসে এলো। জি স্যার, ভালো আছি। গত সপ্তাহে তোমার পাঠানো রিপোর্ট আর রিকুইজিশন নিয়ে আমরা বসেছিলাম, তোমার ধারণাই ঠিক, আমাদের বাগানের চা পাতায় কোনো খারাপ কিছুই পাওয়া [বিস্তারিত]

আগস্ট ০৮২০১৭
 
ঘূণে ধরা সমাজে ফুলীর সন্তানেরা-পর্ব ৫

ঐ লাল শাড়ীরে নিশি রাইতে যায় কোন বনে ঐ লাল শাড়ীরে…সে সময়কার অরবিট ব্যান্ড এর জন প্রিয় একটি গান।কলেজ লাইফের ফাষ্ট ইয়ার।জীবনের এক ছন্দময় অধ্যায়।সে বয়সটায় নিজেকে মনে হতো হিরো হিরো তা ছাড়া ছাত্র বলে নিজেকে বেশ গর্ব করেই বলতাম এ দেশের কর্তাই আমরা।সে সময় অবশ্য এমন বাক্যের বেশ মুল্য ছিলো তখন ছাত্ররা যে পথ [বিস্তারিত]

জলতরঙ্গ (৬)

 লিখেছেন on আগস্ট ৬, ২০১৭ at ৯:৪২ অপরাহ্ন  গল্প  ১২ Responses &#১৮৭;
আগস্ট ০৬২০১৭
 
জলতরঙ্গ (৬)

      নীলা, নীলা। ঘুম ভেঙ্গে গেল নীলার, লাফ দিয়ে উঠে বসলো নীলা, উঠে বসে লজ্জিত নীলা বললো, সরি ঘুমিয়ে পড়েছিলাম কখন বুঝে উঠতে পারিনি, আপনার কাজ কি শেষ, কয়টা বাজে? রাত দুইটা, কাজ শেষ হয়ে যাওয়াই দেখলাম আপনি ঘুমিয়ে গেছেন, আবীর বললো। এতো রাত হয়ে গেলো? হাঁ রাত গভীর এখন। ওহ তাহলে আমি [বিস্তারিত]

আগস্ট ০৬২০১৭
 
ফেইস বুক জ্বর-শেষ পর্ব

আজম সাহেব খুবই কষ্ট পাচ্ছেন।মানুষ কেমন যান্ত্রিক হয়ে গেল।ঘরে বসেই সব কিছুই অনায়াসেই পাচ্ছেন,পকেটেই থাকে দুনিয়ার সব তথ্য ভন্ডার তাই তার একটু লোভ হলো অন লাইন জগৎটাকে একটু চেখে দেখবার।পাশেই ছিলো তার একটি কম্পিউটার।ইউজ না করার কারনে ধূলো বালি পড়ে ছিলো। তা নিজেই একটু একটু ফু দিয়ে পরিষ্কার করে তা চালু করলেন।যেহেতু শিক্ষিত তাই ওটা [বিস্তারিত]

ভারত ভ্রমণের গল্প-৩

 লিখেছেন on আগস্ট ৬, ২০১৭ at ১২:২৩ পূর্বাহ্ন  গল্প  ১ Response &#১৮৭;
আগস্ট ০৬২০১৭
 

  যেদিন বর্ডার পাড় হবে, সেদিন বিকালবেলাই জানিয়ে দেয়া হয়েছে; আজ বর্ডার পাড় করা হবে। ঠিক তাই হলো, সন্ধ্যার সময়ই দালালদের তাড়াহুড়ো বেড়ে গেল। সেদিন ঝামেলা একটু কম হয়েছে রমেশদের। কারণ; রমেশ, কানাই আর দুবোন ছাড়া অন্য কোনো ভারত যাবার যাত্রী ছিল না, তাই। মনে হয় বর্ডারে তিনদিন বিরতির মূল কারণ ছিল, যাত্রী সংগ্রহের একটা [বিস্তারিত]

ভারত ভ্রমণের গল্প-২

 লিখেছেন on আগস্ট ৪, ২০১৭ at ১:৩৫ পূর্বাহ্ন  গল্প  ১ Response &#১৮৭;
আগস্ট ০৪২০১৭
 

এদিকে কানাইর মা-বোন যেই মহল্লায় থাকে, সেখানকার এক লোকের বাড়ি আছে ভারতে। তা শুধু জানতো মহল্লার লোক আর কানাই; জানতো না রমেশ। অথচ ওই লোকটাকে রমেশও ভালো করে চিনে-জানে। ভারতে ওই লোকটার বাড়ি আছে, বাড়ি পাহারা দেবার মতো লোক নাই। কানাই সেই লোকের সাথে আলাপ করল, রমেশের কথা। রমেশের কথা শুনে বাড়ির মালিক সাথে সাথে [বিস্তারিত]

ভারত ভ্রমণের গল্প-১

 লিখেছেন on আগস্ট ৩, ২০১৭ at ১:৩৫ পূর্বাহ্ন  গল্প  ৮ Responses &#১৮৭;
আগস্ট ০৩২০১৭
 

রমেশ ও বনিতার শুভ বিবাহের দুইবছর পর দেখা মেলে নতুন অতিথির। তাদের কোলজুড়ে আসে একটি মেয়ে সন্তান। মায়ের নামের সাথে মিলিয়ে নাম রেখেছে অনিতা। কিন্তু তখনো অভাব রমেশের পিছু ছাড়ছে না। রমেশের বেতন মাত্র ১৭০০ টাকা, তার উপরে বাসা ভাড়া, খাওয়া খরচ। তবু চলছে রমেশের অভাবের সংসার, খেয়ে না খেয়ে। কাজ করে নারায়ণগঞ্জের কোনো এক [বিস্তারিত]

জলতরঙ্গ (৫)

 লিখেছেন on আগস্ট ১, ২০১৭ at ৮:২০ অপরাহ্ন  গল্প  ১০ Responses &#১৮৭;
আগস্ট ০১২০১৭
 
জলতরঙ্গ (৫)

    আবীর চা পাতার স্যাম্পল আর নিজের কালেক্ট করা মাঠির স্যাম্পল গুলো নিয়ে ল্যাবে প্রবেশ করে অবাক হলো, এ যদি ল্যাবের অবস্থা হয়, তাহলে তো কিছুই করার নেই, হতাশ হয়ে বেরিয়ে এলো ও, নিজ রুমে গিয়ে পিয়নকে কল দিলো, পিয়ন এলে রফিক সাহেবকে সালাম দিতে বললো, সাথে চা দিতে বললো। একটু পর রফিক সাহেব [বিস্তারিত]

হীরের আংটি(চতুর্থ অংশ)

 লিখেছেন on জুলাই ৩১, ২০১৭ at ১০:০৯ অপরাহ্ন  গল্প  ২ Responses &#১৮৭;
জুলাই ৩১২০১৭
 

আজ সকাল থেকে তিমিরের মা,রূপার কথা খুব মনে পরছে,শেষের দিকে এসে রুপা কেমন যেন তিমিরের চেয়েও ছোট হয়ে গিয়েছিল,ডিমেনশিয়া যখন রুপাকে পুরোপুরি ষোলো আনা জুড়ে বসেছে ঠিক তখন রূপা প্রায়ই তিমিরকে জিজ্ঞেস করতো তোমার নাম যেন কী? তিমির প্রথম প্রথম মায়ের এমন প্রশ্নে খুব কষ্ট পেত,একদিন সুদীপ্ত বুঝতে পেরে তিমিরকে বলেছিল তুমি মন খারাপ করোনা,তোমার [বিস্তারিত]

শুভ পরিণয়!

 লিখেছেন on জুলাই ৩১, ২০১৭ at ৭:০০ অপরাহ্ন  গল্প  ৯ Responses &#১৮৭;
জুলাই ৩১২০১৭
 

মা-বাবার অভাবের সংসারে, রমেশদের সবসময়ই নুন আনতে পান্তা ফুরাত । রমেশ ছিল চারবোন আর দু’ভাইয়ের মধ্যে সবার ছোট । লেখাপড়ার প্রতি অনেক আগ্রহ ছিল রমেশের । কিন্তু অভাবের কারণে তার সেই আগ্রহ ভেস্তে যায় । লেখাপড়া বেশি একটা করতে না পারলেও; কর্মটা শিখেছে মনের মতন । কর্মটা হলো তাঁতশিল্প টেক্সটাইল মিলে । রমেশ ১২/১৩ বছর [বিস্তারিত]

জুলাই ২৯২০১৭
 
ফেইস বুক জ্বর

হ্যালো,শুনছো? -হুম… -শুনছো তো? -আরে বাবা বলো না…। -আমি তোমার কে? এতো ক্ষণ আজম সাহেবের স্ত্রী মোবাইলে ফেবুকে মগ্ন থাকায় খুব ব্যাস্ত ছিলেন স্বামীর কথায় তেমন গুরুত্ব দেয়া হয়নি।এবার স্বামীর এমন অপ্রস্তুত প্রশ্নে অবাক হন,আপাতত ফেবুক হতে চোখ ফিরিয়ে স্বামীর প্রশ্নের উত্তরটা একটু রাগ নিয়েই দিলেন। -মানে!হঠাৎ এতো বছর পর এ কথা কেনো? -না মানে [বিস্তারিত]

জলতরঙ্গ (৪)

 লিখেছেন on জুলাই ২৫, ২০১৭ at ১১:০৯ অপরাহ্ন  গল্প  ১৩ Responses &#১৮৭;
জুলাই ২৫২০১৭
 
জলতরঙ্গ (৪)

      মা রীতা, তোর মা এতো দেরি করছে কেন, তাড়াতাড়ি করতে বল, রফিক শেখ মেয়েকে তাড়া দিতে বললেন। আনকেল ঐ দূরে কি আছে, এতো লাল হয়ে গেল, আগুন লাগলো নাকি, উদ্বিগ্ন হয়ে আবীর দেখালো। হায় খোদা, এতো শ্রমিকদের গ্রাম মনে হচ্ছে, রফিক শেখ দেখে হায় হায় করে উঠলেন। আবীর বারান্দার রেলিং ধরে উঠানে [বিস্তারিত]

জুলাই ২৫২০১৭
 
ঘূণে ধরা সমাজে ফুলীর সন্তানেরা-০৪

এ সমাজে মুলতঃ ক্ষমতা হীন অর্থ সম্পদ হীন হয়ে জন্মাটাই হয়তো পাপ,যা জয়ের মনের মাঝে এ দেশ এ সমাজ সম্পর্কে তিক্ততাই বলে দেয়।rab পুলিশ স্টেসন থেকে চোখ বেধে কোথায় কি ভাবে নিয়ে গেলেন তা অনুমান করার দুঃসাধ্যও তার ছিলো না।পুলিশী নির্যাতনে তার দেহ অনেকটা অচেতন।বেশ কিছু ক্ষণ পর ধীরে ধীরে চোখ খুললেন জয়,,,,উভুর হয়ে পড়ে [বিস্তারিত]

অনুবাদ গল্পঃ বিস্ময়কর সাত

 লিখেছেন on জুলাই ২৫, ২০১৭ at ৮:৩০ পূর্বাহ্ন  গল্প, সাহিত্য  ১৩ Responses &#১৮৭;
জুলাই ২৫২০১৭
 
অনুবাদ গল্পঃ বিস্ময়কর সাত

  ছোট্ট এক গ্রামের ৯ বছর বয়সী এক মেয়ে ‘অ্যানা’। গ্রামের এক স্কুল থেকেই সে ৪র্থ শ্রেণী পর্যন্ত প্রাথমিক শিক্ষা অর্জন করেছে। এরপর আরও উন্নত শিক্ষার জন্যে শহুরে ভালো স্কুল গুলির ৫ম শ্রেণীতে ভর্তি হবার আবেদন করল, আর তার ভালো ফলাফল এবং মেধার ভিত্তিতে শহরের এক নামকরা স্কুলে সে ভর্তি হবার সুযোগও পেয়ে গেলো। নতুন [বিস্তারিত]

“হীরের আংটি” ৩য় অংশ

 লিখেছেন on জুলাই ২৪, ২০১৭ at ৮:১১ অপরাহ্ন  গল্প  ৪ Responses &#১৮৭;
জুলাই ২৪২০১৭
 

চারদিকে খাঁ খাঁ রোদ,কিন্তু কেন যেন নিতুর বার বার মনে হচ্ছে ওর জানালা জুরে সারাদিন আকছাঁয়া হয়ে রয়েছে।এক খন্ড মেঘ কিছুতেই সেখান থেকে সরছে না।এই জানালাটা নিতুর খুব পছন্দের,যেদিন ওর খুব মন ভাল থাকে,সে দিন খুব সকালে উঠেই এই জানাটা খুলে দেয় নিতু,আর সাথে সাথে জানালার ওপাশে সারা রাত অপেক্ষা করে থাকা হাওয়া গুলো যেন [বিস্তারিত]