বদলে দাও

 লিখেছেন on জানুয়ারী ২১, ২০১৮ at ৫:৩৪ অপরাহ্ন  একান্ত অনুভূতি, বিবিধ  Add comments
জানু. ২১২০১৮
 

এই কি বলবি বল?
ফুটপাত কি তোর?
দৈনিক মাশহারায় ক্রয়কৃত স্থান যে আমার!
কে দিলো তোরে এ অধিকার?
যার আছে জোড় যার মিছিলে লাখো মানুষের ঢল
দুর!মানুষ না ছাই!
ভাত ছিটালে যেমন কাকের অভাব নাই,
আজকাল কার রাজনৈতিক নেতাদের মিছিলের অবস্থাও তাই!।

এই কি বলবি বল?
শোন,যা বলছি শোন!,
আমি জনতা আমিই নেতা আমার সিলেই হয় যে তৈরী কত নেতা খেতা;
ইচ্ছে হলে আমিই তুলি সাত আসমানে
ইচ্ছে হলে পারিও আবার গেথে দিতে পাতালে…হুম।

এই তুই এবার শোন!
বল?
ভেজাল নেই কোথায়?বল না আমায়?
তুইই বল!,
জাতি গঠনে শিক্ষার বিকল্প যে নেই
হয়কি সেই শিক্ষা!?
কারিগরির খবর নাই,
ঐতিহাসিক ছন্দে গদ্যে সাম্প্রদায়ীক গন্ধ যে ভাই পাই!
ভুল বালের নেই যে আরো অন্তঃ
রাষ্ট্রীয় যড়যন্ত্র,
পরীক্ষার আগেই প্রশ্ন ফাসের খবর আমরা আগেই;
কেমনে পেয়ে যাই?
লজ্জা নেই শরম নেই আমি মন্ত্রী আমার তাতে কি!
আমার গোষ্টিতো বৈদেশেতে পড়াই।।

দিনে রাতে চব্বিশ ঘন্টায় পাচ ঘন্টা দিনের কামাই
জ্যামে সময় যাচ্ছে যে ভাই যত্র ছত্র;
নেই ট্রাফিক,যা আছে তা পেটের ধান্দায় ইচ্ছে মত যান শহরে নিয়ম চালায়!
পিষে নিয়ে যদি যায় তরতাজা প্রান!
আইনের আওতায় তাদের শাস্তি দেয়া,
কোন মন্ত্রীরও মোরদ নাই!।।

নেই খাদ্য খাদ্য ভবনে অখাদ্যে রাজ্য চলে
চাদাঁ বাজি আর টেন্ডার বাজির দৌড়াত্মায়
রডের বদলে বাশ যে লাগাই!,
খাদ্যে ভেজাল ফলে ভেজালঁ ভেজাল শাখসবজি!
ভেজালেও ভরা যে ভাই এ মানুষের মন,
আকাশে উড়ে প্রতিবাদী মানবতার শব্দ,নেই কারো অন্তরে,
কুকুর খুন হলো না মানুষ খুন করল নেই যে বিবেক তাগো মনের ভিতরে!।।

কেউ বুঝে না কেউ শুনে না
এ জীবনের বাকী সময় আর কতক্ষণ!,
তবুও যে ভাই করছে ভেজালঁ,ভাবছে ভেজাল দিনে রাতে সর্বোক্ষণে
ভেজাল আছে রাষ্ট্র তন্ত্রে,
সংবিধানের সংশোধে সংবিধান হয় যে বার বার কুপোকাত!,
তবুও ক্লিয়ার হয় না যে ভাই জনগণের অধিককার।

রাজার প্রয়োজনে প্রজা মারেন;প্রজাই হয় যে দোষী
প্রজার রক্তে চলে রাষ্ট্র,চলে যে ভাই প্রশাসন
আমার টাকা আমার সেবক আমারেই কয় যে;কে আমি!
সাতান্নতে ধারায় ধরবে আমায় অ্যানকাউন্টারে কবরে যে গুলি।

আমি পাগল আমি প্রেমিক,দেশ নিয়ে ভাবি যে ক্ষণিক ক্ষণিক
থাক না ভাবনা পরে এবার আমি ভাবার কেডা আবার?
যারা ভাবার ভাবুক তারা,
তারা কি আমাগো জাত ছাড়া!
যারা ভাববার তারা ভাবে না আবার;
ভাবতে রসিক পাগলও বাদ যায় না…..।।

এই শোন!তুই এবার শোন!,
দেশটা কারো নয়তো বাবার!নয়তো কারো স্বামীর,
ত্রিশ লক্ষ শহীদের রক্তে লাল,লক্ষ মায়ের সবুজের বিনিময়ে
এ দেশটি হলো তোমার আর আমার!
শ্লোগান তোল ফের অস্ত্র ধরো!,
এ ঘূণে ধরা সমাজ-রাষ্ট্রকে মুক্তি যোদ্ধার স্বপ্নে বদলে ফেলো।।

  ৩টি মন্তব্য, “বদলে দাও”

    
  1. সব মিথ্যা আজ। শহীদ শহিদ কি লাভ মুক্তিযোধারাও আজ ভেজাড়
    উজাড় করে নিচ্ছে দেশের সম্পদ তা কোটা আর ফোটায় জোর
    আছে ভরি ভরি তবুও সরকারের কাছে হচ্ছে জোর দাবি
    দাও আরো দাও গড়ি গড়ি সম্পদের পাহাড় এই তাদের দাবি।
    অথচ অসহায় মুক্তিযোধা না খেয়ে মরে
    সহায় সম্বল যোধা বলে না আমি না দাও তাঁরে।

  2. 
  3. 
  4. বদলাতেই হবে, এর বিকল্প নেই।

    ভাল পোষ্ট।